Ads
img

ক্ষুদ্র ও সম্ভাবনাময় ব্যান্ড মিউজিক দলগুলোকে সুযোগ করে দেয়া এবং তাদের যোগ্যতর অবস্থান তৈরিতে সহায়তার করার লক্ষ্য নিয়ে ‘ব্যান্ড মিউজিক এক্সপ্রেস’ এর আয়োজনে আজ ধানমন্ডির রবীন্দ্র সরোবরের মুক্ত মঞ্চে অনুষ্ঠিত হলো রকব্যান্ড ফেসটিভ্যাল-২০১৮। 

বিকাল ৩টা থেকে শুরু হওয়া এ মিউজিক ফেসটিভ্যালে উদীয়মান ৭টি রক ব্যান্ড পারফর্ম করে। ব্যান্ডগুলো হচ্ছে দূরবীন, ফ্রেড, ওয়্যারসাইট, ডাকনাম, ব্যাসার্ধ, রীকার এবং তৃষ্ণার্ত। রকব্যান্ড ফেসটিভ্যালের স্পন্সর হচ্ছে- এন.আর জাপান বিডি লিঃ, ওয়েল ফুড এবং মর্নিং ফ্রেস। টেলিভিশন পার্টনার ৭১ টেলিভিশন, অনলাইন পার্টনার জিরো আওয়ার ২৪ ডট কম এবং প্রোডাকশন পার্টনার সঙ্গী ফিল্মস।    

রকব্যান্ড মিউজিক ফেসটিভ্যাল এর অন্যতম আয়োজক হিরন বলেন- বাংলাদেশে ব্যান্ড গানগুলোর প্রসার এবং একটি বড় মিউজিকাল ইন্ডাস্ট্রি তৈরী করাই হচ্ছে ‘ব্যান্ড মিউজিক এক্সপ্রেস’ এর মূল লক্ষ্য। তিনি বলেন- সারাদেশে অসংখ্য সম্ভাবনাময় ব্যান্ড রয়েছে কিন্তু অনেকেই নানান সীমাবদ্ধতার কারণে তাদের যোগ্যতা প্রমাণের সুযোগ পাচ্ছেনা। ব্যান্ড মিউজিক এক্সপ্রেস হচ্ছে সেই প্লাটফর্ম যা সম্ভাবনাময় ব্যান্ডগুলোকে সব ধরনের সহায়তা প্রদান করবে। হিরণ বলেন- মাত্র এক বছরের পথচলায় ব্যান্ড মিউজিক এক্সপ্রেস নিজস্ব ইউটিউব চ্যানেলের মাধ্যমে ১০টি ব্যান্ডের মিউজিক ভিডিও রিলিজ করেছে। সারাদেশের ব্যান্ড সঙ্গীত প্রেমী, বিশেষ করে তরুণ প্রজন্মের মাঝে ব্যাপক সাড়া জাগাতে সক্ষম হয়েছে ব্যান্ড মিউজিক এক্সপ্রেস। “বিগত মাত্র ২২ দিনে আমাদের ইউটিউব চ্যানেলটি প্রায় দেড় লাখ মিনিট ভিজ হয়েছে যা আমাদেও জন্য সত্যিই উৎসাহ ব্যঞ্জক। 

 

ব্যান্ড মিউজিক এক্সপ্রেস এর উপদেষ্টা এবং দূরবীন ব্যান্ডের প্রধান সাঈদ শহীদ বলেন- বহুদিন ধরে অনেক সাধানায় ব্যান্ডগুলো অ্যালবামের জন্য গান রেডি করে অথচ মিউজিক কোম্পানিগুলো ৬০ বছরের জন্য গানের মালিকানা নিয়ে নেয়। কোনো দিনও ব্যান্ডগুলো তাদের পূর্ণ আধিকার পায় না। এসব কথা চিন্তা করে "ব্যান্ড মিউজিক এক্সপ্রেস" স্বাধীনতার মাস থেকে শুরু করল এক নতুন যাত্রা। এখন থেকে "ব্যান্ড মিউজিক এক্সপ্রেস" তাদের নিজস্ব খরচে ব্যান্ডের অ্যালবাম বের করবে এবং তার মালিকানা পাবে ব্যান্ডদলগুলো।

 

৭১ টিভির ডিরেক্টর নিউজ এন্ড কারেন্ট অ্যাফেয়ার্স ইশতিয়াক রেজা বলেন- ৭১ টেলিভিশন বস্তুনিষ্ট সংবাদ পরিবেশনের মাধ্যমে দেশের সবচেয়ে নির্ভরযোগ্য নিউজ চ্যানেল হিসেবে নিজেদের অবস্থান সুপ্রতিষ্ঠিত করেছে। তবে শুধু সংবাদই নয় সব ধরনের শুভ উদ্যোগের সাথেই একাত্তর টেলিভিশন ছিল আছে এবং থাকবে। 

জিরো আওয়ার ২৪ ডট কম এর এডিটর ইন চীফ মো. সাজ্জাদ হোসেন বলেন- সবার জন্য সুস্থ বিনোদনের ব্যবস্থা করতে হবে। বিশেষ করে তরুণদের জন্য সুস্থ্য সঙ্গীত চর্চ্চার ক্ষেত্র তৈরি করে দিতে হবে যেন তারা সুস্থ ধারায় থাকতে পারে এবং একই সাথে অন্যদের আনন্দময় জীবন উপহার দিতে পারে। 

এন.আর জাপান বিডি লিঃ এর ব্যবস্থাপনা পরিচালক মো. সাইফুল ইসলাম বলেন- বাংলাদেশে রক মিউজিক দিন দিন সমৃদ্ধ হচ্ছে। রকব্যান্ড ফেসটিভ্যাল এ ধারাকে আরও শক্তিশালী করবে। নির্বাহী পরিচালক এ.জেড.এম জিয়াউদ্দিন মাহমুদ বলেন- এমন একটি উদ্যোগের সাথে যুক্ত হতে পেরে আমরা অত্যন্ত খুশি হয়েছি।     

রকব্যান্ড মিউজিক ফেসটিভ্যালে আজ ব্যান্ডদল ‘ডাকনাম’ এর একটি মিউজিক ভিডিও এলবামের মোড়ক উন্মোচন করা হয়। নাম দেয়া হয়েছে ‘নদী ও শহর’। মোড়ক উন্মোচন অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন- দূরবীনের সাঈদ শহীদ, "শিরোনামহীন" ব্যান্ডের জিয়া, সাউন্ড ইঞ্জিনিয়ার রোকন এবং রেডিও নেক্সট এর বিপ্র। 

জিয়া বলেন, আমদের দেশে অনেক ভালো গান হচ্ছে,। নানা বাধার কারণে ছোট ছোট ব্যান্ডগুলো সেভাবে আত্মপ্রকাশ করতে পারছেনা। সবাই মিলে এই সমস্যার সমাধান করতে হবে। রক ফেস্টিভ্যালে অংশগ্রহণকরি ব্যান্ডদলগুলোর প্রধান এবং স্পন্সর, মিডিয়া ও প্রোডাকশন পার্টনার প্রতিনিধিদের হাতে সম্মাননা ক্রেস্ট তুলে দেন সাঈদ শহীদ।  

এই বিভাগের আরও খবর