img

বিদ্যুৎ উৎপাদনের জন্য পারমাণবিক চুল্লি নির্ভরতা আরও বাড়ল বাংলাদেশে (Bangladesh)। ঈশ্বরদীর রূপপুরে পরমাণু বিদ্যুৎকেন্দ্রের দ্বিতীয় ইউনিটের রিঅ্যাকটর প্রেশার ভেসেল উদ্বোধন হবে বুধবার। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা (Bangladesh PM Sheikh Hasina) তার উদ্বোধন করবেন। রাশিয়ার (Russia) সংস্থা রসাটমের সহযোগিতায় বাংলাদেশে তৈরি হচ্ছে প্রথম পরমাণু বিদ্যুৎকেন্দ্র। সেই উপলক্ষে রূপপুরে এখন প্রস্তুতি তুঙ্গে।

রুশ সংস্থা আণবিক শক্তি করপোরেশন রসাটমের সহযোগিতায় ঈশ্বরদীর রূপপুরে তৈরি হওয়া দেশের প্রথম পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্রে থার্ড প্লাস জেনারেশনের দুটি ১২০০ ইউনিটের মোট ২৪০০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ উৎপাদন ক্ষমতা সম্পন্ন দুটি ইউনিটের কাজ চলছে দ্রুতগতিতে। ২০২৫ সালের ডিসেম্বরে প্রকল্প শেষ করার লক্ষ্যমাত্রা নেওয়া হয়েছে। বাংলাদেশের ইতিহাসে এটি সবচেয়ে বড় প্রকল্প। প্রতিদিন তিন শিফটে দেশি, বিদেশি প্রায় ২৫-২৬ হাজার মানুষ এই প্রকল্পে দিনরাত কাজ করছেন। করোনা কালেও প্রকল্পের কাজ অনেকটা এগিয়ে গিয়েছে। ২০২১ সালের অক্টোবরে ঢাকা থেকে ভিডিও কনফারেন্সিংয়ের মাধ্যমে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা প্রথম ইউনিটের রিঅ্যাক্টর (Reactor) প্রেশার ভেসেল বা পরমাণু চুল্লিপাত্রের উদ্বোধন করেছিলেন। এক বছর পর দ্বিতীয় চুল্লি উদ্বোধনের পালা।জানা গিয়েছে, ওই উদ্বোধন উপলক্ষে রূপপুরে সাজ সাজ রব পড়ে গেছে। অনুষ্ঠানকে বর্ণাঢ্য করার জন্য উচ্চপদস্থ কর্মকর্তা থেকে শুরু করে সবার মধ্যে কর্মব্যস্ততা দেখা গেছে। অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন রাশিয়ার পরমাণু শক্তি সংস্থা রসাটমের ডিরেক্টর অ্যালেক্সি লিখাচেভ। তিনি বুধবার সকালে হেলিকপ্টারে ঢাকা থেকে অনুষ্ঠানস্থলে এসে পৌঁছবেন বলে জানা গিয়েছে।রবিবার থেকে বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী স্থপতি ইয়াফেস ওসমান রূপপুরে রয়েছেন। মন্ত্রণালয়ের সচিব, বাংলাদেশ পরমাণু শক্তি কমিশনের চেয়ারম্যান থেকে শুরু করে উচ্চপদস্থ কর্মকর্তারা শিগগিরই এসে পৌঁছবেন।  প্রকল্পের পরিচালক ড. শওকত আকবর বলেন, ”আমরা দ্রুততম সময়ের মধ্যে প্রকল্পটি বাস্তবায়নের জন্য কাজ করছি। এরই মধ্যে প্রথম ইউনিটের ৭৫ ভাগ ভৌত-অবকাঠামো কাজ সম্পন্ন হয়েছে। একই সঙ্গে দ্বিতীয় ইউনিটের কাজও দ্রুতগতিতে এগিয়ে নেওয়ায় এখানে রি-অ্যাক্টর প্রেশার ভেসেল বসানো হচ্ছে। প্রতিটি যন্ত্র সর্বোচ্চ পরীক্ষানিরীক্ষার ধাপ পেরিয়ে নকশা অনুযায়ী বসানো হচ্ছে। এর জন্য নিয়ন্ত্রণ কর্তৃপক্ষের সার্টিফিকেট নিতে হয়েছে।”

এই বিভাগের আরও খবর