Ads
img

জাতীয় পার্টির (জাপা) মহাসচিব পদে আবার পরিবর্তন এল। পদ পাওয়ার দেড় বছরের বেশি সময় পর মশিউর রহমান রাঙ্গাকে সরিয়ে জিয়াউদ্দিন আহম্মেদ বাবলুকে নতুন মহাসচিব হিসেবে ঘোষণা করা হয়েছে। জাপায় যেকোনো পরিবর্তন অবশ্যম্ভাবী, এমন মন্তব্য করে দলীয় চেয়ারম্যানের এই সিদ্ধান্ত মেনে নিয়েছেন মশিউর রহমান।

আজ রোববার জাপা চেয়ারম্যান গোলাম মোহাম্মদ কাদের (জিএম কাদের) দলের নতুন মহাসচিবের নাম ঘোষণা করেন।

জাপার যুগ্ম দপ্তর সম্পাদক মাহমুদ আলমের পাঠানো বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, ‘গোলাম মোহাম্মদ কাদের আজ এক সাংগঠনিক আদেশে জিয়াউদ্দিন আহম্মেদ বাবলুকে পার্টির মহাসচিব হিসেবে নিয়োগ দিয়েছেন। জিয়াউদ্দিন আহম্মেদ বাবলু মহাসচিব হিসেবে মশিউর রহমান রাঙ্গার স্থলাভিষিক্ত হবেন। জাতীয় পার্টির গঠনতন্ত্রের ২০ / ১ (১) ক উপধারার প্রদত্ত ক্ষমতাবলে এই আদেশ আজ থেকেই কার্যকর হবে।’

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের আগে ২০১৮ সালের ৩ ডিসেম্বর জাতীয় পার্টির প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান এইচ এম এরশাদ রুহুল আমিন হাওলাদারকে সরিয়ে মশিউর রহমান রাঙ্গাকে দলের মহাসচিব করেন। এরশাদ মারা যাওয়ার পর ২০১৯ সালের ২৮ ডিসেম্বর জাতীয় পার্টির নবম কাউন্সিলেও মশিউর রহমান রাঙ্গা মহাসচিব হিসেবে থাকেন।

কাউন্সিলের বছর না পেরোতেই মশিউর রহমান রাঙ্গাকে মহাসচিবের পদ থেকে সরিয়ে দেওয়া হলো। সরিয়ে দেওয়ার বিষয়টি জানতেন না বলে দাবি করেছেন মশিউর রহমান। তিনি বলেন, ‘জাতীয় পার্টিতে যেকোনো সময় পরিবর্তন অবশ্যম্ভাবী। বিশেষ করে যাঁদের মহাসচিব করা হয়, তাদের যেকোনো সময় ব্যাগ নিয়ে রেডি থাকতে হয়।’

মশিউর রহমান বলেন, ‘আমি তিন বছরের জন্য কাউন্সিলে মহাসচিব নির্বাচিত হয়েছি। এটা পরিবর্তন করার ক্ষমতা চেয়ারম্যানের আছে। উনি করেছেন। আমি থেকে এ ব্যাপারে কিছু জানতাম না। আজকে সকালের পরে জেনেছি। এখন পর্যন্ত কোনো চিঠি দিয়ে কিছু জানানো হয়নি। কেন হলো, তা বুঝতে পারছি না।’

নতুন মহাসচিব জিয়াউদ্দিন বাবলু বলেন, ‘দলীয় চেয়ারম্যান গঠনতন্ত্র অনুযায়ী নিয়োগ দিয়েছেন। দলকে সংগঠিত ও শক্তিশালী করা আমার লক্ষ্য।’

জিরোআওয়ার২৪/এমএ

এই বিভাগের আরও খবর